সর্বশেষ আপডেট করা হয়েছে :2017-04-29 
Links
 
এ পর্যন্ত পড়েছেন
জন পাঠক
 
সর্বমোট জীবনী 317 টি
ক্ষেত্রসমূহ
সাহিত্য ( 37 )
শিল্পকলা ( 18 )
সমাজবিজ্ঞান ( 8 )
দর্শন ( 2 )
শিক্ষা ( 17 )
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ( 8 )
সংগীত ( 10 )
পারফর্মিং আর্ট ( 11 )
প্রকৃতি ও পরিবেশ ( 2 )
গণমাধ্যম ( 8 )
মুক্তিসংগ্রাম ( 154 )
চিকিৎসা বিজ্ঞান ( 3 )
ইতিহাস গবেষণা ( 1 )
স্থাপত্য ( 1 )
সংগঠক ( 8 )
ক্রীড়া ( 6 )
মানবাধিকার ( 2 )
লোকসংস্কৃতি ( 0 )
নারী অধিকার আন্দোলন ( 2 )
আদিবাসী অধিকার আন্দোলন ( 1 )
যন্ত্র সংগীত ( 0 )
উচ্চাঙ্গ সংগীত ( 0 )
আইন ( 1 )
আলোকচিত্র ( 3 )
সাহিত্য গবেষণা ( 0 )
Untitled Document
এ মাসে জন্মদিন যাঁদের
রশিদ চৌধুরী: এপ্রিল ০১
নুরুল ইসলাম: এপ্রিল ০১
মোহাম্মদ মোর্তজা : এপ্রিল ০১
জুয়েল অাইচ: এপ্রিল ১০
অজিত গুহ: এপ্রিল ১৫
আনোয়ার পাশা: এপ্রিল ১৫
হাশেম খান: এপ্রিল ১৬
এ এফ এম আবদুল আলীম চৌধুরী: এপ্রিল ১৬
ফজলে হাসান আবেদ: এপ্রিল ২৭
হুমায়ুন আজাদ: এপ্রিল ২৮
রবি নিয়োগী: এপ্রিল ২৯
নেত্রকোণার গুণীজন
ট্রাস্টি বোর্ড
উপদেষ্টা পরিষদ
গুণীজন ট্রাষ্ট-এর ইতিহাস
"গুণীজন"- এর পেছনে যাঁরা

If you cannot view the fonts properly please download and Install this file.
 
Untitled Document

 

Online Exhibition
New Prof
মমতাজ বেগম সৈয়দ হাসান ইমাম নূরজাহান বেগম (ময়মনসিংহ)
 
উপনিবেশবাদবিরোধী বিপ্লবী রবি নিয়োগীর জন্মদিন

বিপ্লবী রবি নিয়োগীর জন্ম বাংলা ১৩১৬ সালের ১৬ বৈশাখ, ইংরেজি ১৯০৯ সালের ২৯ এপ্রিল শেরপুরের এক বিখ্যাত জমিদার পরিবারে।

১৯৩০ সালের দিকে কংগ্রেস সত্যাগ্রহ আন্দোলনের ডাক দেয়। তখন তিনি সেই আন্দোলনে ঝাঁপিয়ে পড়েন। ১৯৩৮ সালে নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসু যখন কংগ্রেসের প্রচার কাজ চালাতে শেরপুরে আসেন তখন সেই সভাতে সভাপতিত্ব করেন বিপ্লবী রবি নিয়োগী। ১৯৩৭ সালে নেত্রকোনা জেলার দলার গ্রামে যে টঙ্ক প্রথার বিরুদ্ধে আন্দোলনের ডাক দেওয়া হয় তার অংশ হিসেবে ১৯৪৩ সালে নালিতাবাড়িতে প্রাদেশিক কৃষক সম্মেলন হয়। সেখানে তিনি নেতৃত্বের ভূমিকা পালন করেন।

রবি নিয়োগীর জন্মদিনে 'গুণীজন' তাঁকে শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করছে।

তাঁর বর্ণাঢ্য জীবনী পড়তে ক্লিক করুন।

সাহিত্যিক হুমায়ুন আজাদের জন্মদিন

বহুমাত্রিক জ্যোতির্ময় কবি, ঔপন্যাসিক, সমালোচক, ভাষাবিজ্ঞানী, প্রাবন্ধিক, রাজনীতিক বিশ্লেষক ও কিশোর সাহিত্যিক অধ্যাপক হুমায়ুন আজাদ জন্মগ্রহণ করেন বাংলা ১৩৫৪ সালের ১৪ বৈশাখ, ইংরেজি ১৯৪৭ সালের ২৮ এপ্রিলে মুন্সিগঞ্জ জেলার বিক্রমপুরের কামারগাঁও-এ।

তিনি সবসময় লিখেছেন সচেতনভাবে। তাই তাঁর লেখার প্রক্রিয়াটি হচ্ছে একটি যৌক্তিক প্রক্রিয়া, তাঁর লেখার প্রতিটি বাক্য, প্রতিটি শব্দ ছুটে যায় অভীষ্ট সিদ্ধির দিকে। চূড়ান্তভাবে তিনি বুঝতে চেয়েছিলেন বাংলাদেশের সমাজকে, সংস্কৃতিকে, অর্থনীতি ও রাজনীতিকে সর্বোপরি বাংলাদেশের সমগ্র প্রসঙ্গ কাঠামোকে। পাঠকদের জন্য প্রায় ৭০টির মতো বই রেখে গেছেন তিনি। তাঁর লিখিত সাহিত্যের প্রতিটি শাখায় ছিল সমান গুরুত্বের স্বীকৃতি।

হুমায়ুন আজাদের জন্মদিনে 'গুণীজন' তাঁকে শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করছে।

তাঁর বর্ণাঢ্য জীবনী পড়তে ক্লিক করুন।

ব্র্যাকের প্রতিষ্ঠাতা ফজলে হাসান আবেদের জন্মদিন

বাংলাদেশের অন্যতম উন্নয়নকর্মী, ব্র্যাকের প্রতিষ্ঠাতা ফজলে হাসান আবেদের জন্ম ১৯৩৬ সালের ২৭ এপ্রিল হবিগঞ্জ জেলার বানিয়াচংয়ে সচ্ছল ও সম্ভ্রান্ত এক পরিবারে।

ফজলে হাসান আবেদের স্বপ্নের ব্র্যাক আজ বাংলাদেশের মোট জনসংখ্যার মধ্যে ১০ কোটি মানুষের জীবন-জীবিকায় সহায়তা জুগিয়ে যাচ্ছে। এদেশের সব কয়টি জেলায় ব্র্যাক সাফল্যের সঙ্গে কাজ করছে। দেশের ৭৮ শতাংশ গ্রামে এর কর্মকাণ্ড বিস্তৃত। এ ছাড়া স্বদেশের সীমানা পেরিয়ে ব্র্যাক পাকিস্তান, শ্রীলংকা, আফগানিস্তান, সিয়েরে লিওন, দক্ষিণ সুদান, তানজানিয়া ও উগান্ডায় সফলতার সঙ্গে কাজ করে যাচ্ছে।

তাঁর জন্মদিনে 'গুণীজন'-এর পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা রইল।

ফজলে হাসান আবেদের বর্ণাঢ্য জীবনী পড়তে ক্লিক করুন।

শিক্ষাবিদ অজিত গুহের জন্মদিন

অজিত গুহের জন্ম ১৯১৪ সালের ১৫ এপ্রিল কুমিল্লা শহরের সুপারিবাগানের গুহ পরিবারে। ।

তিনি তাঁর মার্জিত রুচিবোধ আর প্রজ্ঞার কারণে শুধু জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় নয়, তৎকালীন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের মধ্যেও প্রভাব ফেলতে সক্ষম হয়েছিলেন। ক্লাস নেয়ার ব্যাপারে তিনি ছিলেন খুবই আন্তরিক। তিনি শুধু শিক্ষার্থীদের খণ্ডকালের জন্য শিক্ষা দিতেন না। তিনি তাদেরকে সারা জীবন শিক্ষাচর্চার ক্ষেত্রে উৎসাহিত করতেন। ক্লাসে তিনি সেভাবেই ছাত্রছাত্রীদের প্রভাবিত করতেন।

তাঁর জন্মদিনে 'গুণীজন' তাঁকে শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করছে।

অজিত গুহের বর্ণাঢ্য জীবনী পড়তে ক্লিক করুন।

শহীদ বুদ্ধিজীবী আনোয়ার পাশার জন্মদিন

১৯২৮ সালের ১৫ এপ্রিল (২ বৈশাখ ১৩৩৫) জন্ম নেন আনোয়ার পাশা।

'নদী নিঃশেষিত হলে', 'সমুদ্র শঙ্খলতা উজ্জয়িনী ও অন্যান্য কবিতা', 'নীড়-সন্ধানী', 'নিষুতি রাতের গাথা' ও 'রাইফেল রোটি আওরাত' সহ আরো অনেক অমর সৃষ্টির স্রষ্টা আনোয়ার পাশাকে ১৯৭১ সালের ১৪ ডিসেম্বরে আলবদর বাহিনীর কয়েকজন সদস্য ধরে নিয়ে চলে যায় মিরপুর বুদ্ধিজীবী স্মৃতিসৌধের দিকে। সেখানেই আরও অনেক প্রগতিশীল বুদ্ধিজীবীর সঙ্গে নির্মমভাবে আনোয়ার পাশার জীবনপ্রদীপ নিভিয়ে দেয়া হয় ।

তাঁর জন্মদিনে 'গুণীজন' তাঁকে শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করছে।

আনোয়ার পাশার বর্ণাঢ্য জীবনী পড়তে ক্লিক করুন।

   
Gunijan

© 2017 All rights of Photographs, Audio & video clips and softwares on this site are reserved by .